1. admin@prothombela.com : দৈনিক প্রথমবেলা : আলোচিত সংবাদ
  2. celestakilpatrick37@back.lakemneadows.com : celestaz71 :
  3. hershelteakle@back.lakemneadows.com : clkhershel :
  4. demiusher@bronze.crossandgarlic.com : demiusher355 :
  5. clemmie@solarlamps.store : elliottmidgett3 :
  6. t.ra.nn.go.cl.e.b.m.t@gmail.com : gonzalocotter :
  7. 14@sondat.com.vn : imogenebaumgardn :
  8. 59@sondat.com.vn : jeffreykoch508 :
  9. lateshamcmillen85@basic.poisedtoshrike.com : lateshamcmillen :
  10. lavonnebeauchamp@back.lakemneadows.com : lavonnedrc :
  11. luladudley@why.cowsnbullz.com : luladudley363 :
  12. lynarmour19@zero.hellohappy2.com : lynb67085523 :
  13. ruebenmatthias12@why.cowsnbullz.com : rueben0617 :
  14. shereemokare@why.cowsnbullz.com : shereebdf921 :
  15. mikhailodahrz@mail.ru : taylorlawry51 :
  16. tylerdaily15@basic.poisedtoshrike.com : tylerdaily9 :
শিরোনাম :
সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক সেলিমকে বহিস্কার মেহেরপুরের গাংনীতে প্রেমিকের টানে স্বামীকে হত্যা, স্ত্রী আটক সাংবাদিক দম্পতি সাগর-রুনি হত্যা মামলার তদন্ত প্রতিবেদন ৭৯ বার পেছাল তালাক দেয়া স্বামীর কাছে ফিরে যেতে সহায়তা চেয়ে গণধর্ষণের শিকার গৃহবধূ লভ্যাংশ ঘোষণা শাহজালাল ইসলামী ব্যাংকের সন্দেহের ভিত্তিতে কুড়াল দিয়ে কুপিয়ে স্ত্রীর হাত-পা বিচ্ছিন্ন করলেন স্বামী চট্টগ্রামে মাদ্রাসার শিশু শিক্ষার্থী ইয়ামিনকে নির্যাতনের বিষয়ে জানতে চায় হাইকোর্ট বৃহস্পতিবার রাজধানীতে যেসব মার্কেট বন্ধ থাকে বাংলাদেশে পাচারের ঘটনা ঘটে তার মধ্যে ২১ শতাংশই নারী বাংলাদেশ টি-টোয়েন্টি র‍্যাংকিংয়ে সাত

ফার্নিচার ব্যবসায়ী বিক্রয় দেখিয়েছেন ৩৩ হাজার গোপন করেছে ৯৯ শতাংশ

  • আপডেট টাইম: বুধবার, ৩০ ডিসেম্বর, ২০২০
  • ১৯ বার দেখা হয়েছে

রাজধানীতে ফার্নিচারের একজন ব্যবসায়ী ভ্যাট কর্তৃপক্ষের কাছে এক মাসে বিক্রয় দেখিয়েছেন ৩৩ হাজার টাকা; অথচ ওই মাসে তার প্রকৃত বিক্রি হয়েছিল ৩৩ লক্ষ টাকা! মঙ্গলবার (২৯ ডিসেম্বর) ভ্যাট গোয়েন্দার অভিযানে এমন তথ্য মিলেছে মর্মে গণমাধ্যমকে নিশ্চিত করেছে সংস্থাটি।

ওই মাসে করোনার অজুহাতে দোকানে বিক্রয় নেই বলে ভ্যাট সার্কেলকে জানায় ফার্নিচার ব্যবসায়ী। ‘ডাবল অ্যাকাউন্টিং’এর পার্থক্যের এই চিত্র দেখে গোয়েন্দারাও বিস্মিত হন।

একজন কাস্টমারের দায়ের করা অভিযোগে ভ্যাট গোয়েন্দার একটি দল ২৮ ডিসেম্বর পশ্চিম কাফরুলের জৈনপুর ফার্নিচারে এই অভিযান করে। সংস্থার সহকারী পরিচালক মাহিদুল ইসলাম এতে নেতৃত্ব দেন।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একজন অভিযোগ দায়েরকারী বলেন, তিনি ওই দোকান থেকে ফার্নিচার কিনেছেন; কিন্তু তাকে ভুয়া ভ্যাট চালান দেয়া হয়। পরে তার সন্দেহ হলে তিনি ভ্যাট গোয়েন্দার নিকট অভিযোগ করেন।

ভ্যাট গোয়েন্দা অধিদপ্তর অভিযোগটি আমলে নিয়ে অনুসন্ধান করে দেখতে পায়, মিরপুরের রোকেয়া স্মরণীতে প্রায় এক বিঘা জায়গার উপর গড়ে ওঠা সুদৃশ্য এই ফার্নিচারের দোকান বিপুল পরিমাণ ভ্যাট ফাঁকি দিয়ে আসছে। ওই দোকানের ভাড়া ৪.৫ লক্ষ টাকা; শোরুমে ফার্নিচার অতি উন্নতমানের ও দামি ব্রান্ডের।

অনুসন্ধানে আরো দেখা যায়, প্রতিষ্ঠানটি ভ্যাট নিবন্ধিত হলেও ভুয়া ও ডুপ্লিকেট চালান ব্যবহার করে ফার্নিচার বিক্রয় করছে; ভ্যাটের জন্য তারা ভিন্ন ভিন্ন অ্যাকাউন্টস সংরক্ষণ করছে। এতে স্থানীয় ভ্যাট সার্কেলে প্রকৃত বিক্রয় গোপন রেখে নামমাত্র বিক্রির তথ্য ঘোষণা করছে। ফলে কাস্টমার থেকে সংগৃহীত ভ্যাট সরকারের কোষাগারে জমা হচ্ছে না।

অভিযানকালে ফার্নিচারের দোকান থেকে ব্যবসায়ীর বাণিজ্যিক দলিল জব্দ করে গোয়েন্দারা। এতে দেখা যায়, কেবল মার্চ ২০২০ এ তাদের প্রকৃত বিক্রয় ছিল ৩৩ লক্ষ টাকা। কিন্তু তারা মিরপুর সার্কেলে রিটার্নে দেখিয়েছে মাত্র ৩৩ হাজার টাকা। অপ্রদর্শিত বিক্রয় ৩২.৬৭ লক্ষ টাকা।

এই বিক্রয় হিসাব গোপন করার কারণে এক মাসেই ভ্যাট ফাঁকি হয়েছে প্রায় ৫ লক্ষ টাকা। ভ্যাট আইন অনুযায়ী এই প্রতিষ্ঠানের উপর ১৫% ভ্যাট প্রযোজ্য।গোয়েন্দারা অন্যান্য মাসের অনুরূপ তথ্যও উদঘাটন করেছেন।

অনুসন্ধান করে গোয়েন্দারা জানতে পারেন, জৈনপুর ফার্নিচার মার্চ ২০২০ এ করোনার কারণ দেখিয়ে বিক্রয় কম প্রদর্শন করেছে। অথচ ঐ মাসে তাদের প্রকৃত বিক্রয়ের প্রায় ৯৯ শতাংশ গোপন করেছে। ভ্যাট ফাঁকির উদ্দেশ্যেই এই তথ্য গোপন করা হয়েছে মর্মে গোয়েন্দাদের অনুসন্ধানে উঠে এসেছে।

গোয়েন্দা দলটি একই এলাকার অন্য একটি ফার্নিচার দোকানেও আকস্মিক পরিদর্শন ও অভিযান করে। হোমউড ফার্নিচার নামের ওই প্রতিষ্ঠানেও হিসাব গোপনের প্রমাণ পাওয়া যায়। এই অভিযানে হোমউড ফার্নিচার থেকে আগস্ট ও সেপ্টেম্বর ২০২০ মাসের প্রকৃত বিক্রির তথ্য উদ্ধার করা হয়।

উদ্ধারকৃত তথ্যে দেখা যায় যে, আগস্ট ও সেপ্টেম্বর মাসে ভ্যাট অফিসে বিক্রয় দেখানো হয়েছে যথাক্রমে ২৫ ও ৬৪ হাজার টাকা। কিন্তু ঐ দুই মাসে প্রকৃত বিক্রি হয়েছে ৪ লক্ষ ও ১৯.২৯ লক্ষ টাকা।

‘ডাবল অ্যাকাউন্টিং’ এর মাধ্যমে এই দুটো ফার্নিচার প্রতিষ্ঠান ভ্যাট ফাঁকির সাথে জড়িত হওয়ার অভিযোগের সত্যতা মিলেছে। গোয়েন্দা দল জব্দকৃত দলিল আরো যাচাই করছে। একইসাথে তাদের উভয়ের ব্যাংক হিসাব তলব করেছে।আরো তদন্ত করে তাদের বিরুদ্ধে আইন অনুযায়ী ব্যবস্থা নেবে ভ্যাট গোয়েন্দা।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরো খবর

© All rights reserved © 2021 ProthomBela

Site Customized By NewsTech.Com